আজ-  ,
basic-bank পরিক্ষা মূলক সম্প্রচার...
ADD
সংবাদ শিরোনাম :

নৌকা কে বিজয়ী করতে প্রচারনায় নামছেন সাবেক সশস্ত্র বাহিনীর কর্মকর্তারা

আসন্ন একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে আওয়ামী লীগকে বিজয়ী করতে সশস্ত্র বাহিনীর দেড় শতাধিক অবসরপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মাঠে নামছেন।

মঙ্গলবার বিকালে গণভবনে প্রধানমন্ত্রী ও আওয়ামী লীগ সভানেত্রী শেখ হাসিনার সঙ্গে দেখা করে তারা এই অঙ্গীকার করেন।

তারা প্রধানমন্ত্রীকে ফুল দিয়ে শুভেচ্ছা জানান এবং তার সঙ্গে ছবি তোলেন । অনুষ্ঠানের শুরুতেই প্রধানমন্ত্রীর নিরাপত্তা উপদেষ্টা অবসরপ্রাপ্ত মেজর জেনারেল তারিক আহমেদ সিদ্দিক বলেন, “এরা আপনার (প্রধানমন্ত্রী) সঙ্গে দেখা করবেন এবং একাত্মতা প্রকাশ করবেন।এই অবসরপ্রাপ্ত কর্মকর্তারা নির্বাচনে যুক্ত হয়ে নির্বাচনী কর্মকাণ্ড আরও বেগবান করবে। আপনি যাতে পরবর্তীতে আবার বিজয়ী হতে পারেন, সে লক্ষ্যে এরা কাজ করবেন।”তারিক সিদ্দিক আরও  বলেন, “যেমন যাচ্ছে সেভাবে যেন এগিয়ে যেতে পারে, ভবিষ্যতে যেন কোনো বাধা না আসে, সেটা আমাদের নিশ্চিত করতে হবে।”

সাবেক সামরিক কর্মকর্তাদের ধন্যবাদ জানিয়ে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেন, “আপনাদের একাত্মতা ঘোষণা আমাদের ও দেশবাসীকে শক্তি ও সাহস জোগাবে।”এই সমর্থন বাংলাদেশকে এগিয়ে নিয়ে যেতে সহায়তা করবে বলেও আশা প্রকাশ করেন তিনি।

আগামী ৩০ ডিসেম্বর একাদশ সংসদ নির্বাচনে ভোটগ্রহণ হবে। টানা দুই মেয়াদে ক্ষমতায় থাকা আওয়ামী লীগ আবার ভোটে জিততে আশাবাদী।আওয়ামী লীগের এই আশা পূরণ করতে মাঠে নামতে যাওয়া সাবেক এই সেনা কর্মকর্তাদের মধ্যে ১০৯ জন সেনাবাহিনীর, ১৮ জন বিমানবাহিনীর এবং ১৯ জন নৌবাহিনীর।

অনুষ্ঠানে ১৪৭ জন সাবেক সামরিক কর্মকর্তার উপস্থিত থাকার তালিকা দেওয়া হয় সাংবাদিকদের; তবে তারেক সিদ্দিক জানান, উপস্থিতির সংখ্যা ১৫০ জনের বেশি ছিল।অনুষ্ঠানে বেশ কয়েকজন অবসরপ্রাপ্ত সামরিক কর্মকর্তা বক্তব্যও দেন।

অবসরপ্রাপ্ত এয়ার কমোডর দেলোয়ার হোসেন বলেন, “অন্যান্য রাজনৈতিক দল ক্ষমতা কুক্ষিগত করার  জন্য বিভিন্ন সময়ে সশস্ত্র বাহিনীকে ব্যবহার করেছে। কিন্তু শেখ হাসিনার নেতৃত্বাধীন সরকার সামরিক বাহিনীর উন্নয়নে বিভিন্ন কাজ করেছেন।”অন্য বক্তরাও শেখ হাসিনার নেতৃত্বে স্বাধীনতার পক্ষের শক্তিকে আবার ক্ষমতায় রাখতে কাজ করার অঙ্গীকার করেন এবং সবাই হাত তুলে সমর্থন দেন।

নির্বাচনী ডামাডোলের মধ্যে সম্প্রতি সশস্ত্র বাহিনীর সাবেক ১০ কর্মকর্তা কামাল হোসেনের দল গণফোরামে যোগ দিয়েছেন, তবে তাদের কেউ উঁচু পদে ছিলেন না।

অন্যদিকে আওয়ামী লীগের পক্ষে নামাদের মধ্যে রয়েছেন অবসরপ্রাপ্ত ব্রিগেডিয়ার জেনারেল নাসির উদ্দিন, যিনি আহমেদ এরশাদের শাসনামলে কর্নেল থাকা অবস্থায় মিলিটারি ইন্টেলিজেন্সের পরিচালক ছিলেন। পরে ডিজিএফআইয়ের পরিচালক হন। অবসরের পর জাতীয় পার্টিতে যুক্ত হয়েছিলেন তিনি।

অবসরপ্রাপ্ত লেফটেন্যান্ট জেনারেল আবদুল ওয়াদুদ সশস্ত্র বাহিনী বিভাগের প্রিন্সিপাল স্টাফ অফিসার ছিলেন। সেনাবাহিনীর প্রধান প্রকৌশলী ও বাংলাদেশ মেশিন টুলস ফ্যাক্টরির সহকারী পরিচালকের পদেও ছিলেন তিনি। ২০১৩ সালে অবসর নেওয়ার পর তিনি সামিট পাওয়ারের ব্যবস্থাপনা পরিচালকের পদে যোগ দেন।

অবসরপ্রাপ্ত লেফটেন্যান্ট জেনারেল মোল্লা ফজলে আকবরকে ২০০৯ সালে প্রতিরক্ষা গোয়েন্দা মহাপরিদপ্তরের মহাপরিচালক করা হয়েছিল। পরে তিনি ন্যাশনাল ডিফেন্স কলেজের কমান্ডেন্টও হয়েছিলেন।

অবসরপ্রাপ্ত লেফটেন্যান্ট জেনারেল সাব্বির আহমেদ আর্মি ট্রেইনিং অ্যান্ড ডকট্রিন কমান্ডের জেনারেল অফিসার কমান্ডিং (জিওসি)  হন ২০১৫ সালে। ওই বছরই সেনা সদরের চিফ অব জেনারেল স্টাফের (সিজিএস) দায়িত্ব পান তিনি। তার আগে ২৪ পদাতিক ডিভিশনের জিওসি ও চট্টগ্রামের এরিয়া কমান্ডার ছিলেন তিনি।

রিয়ার এডমিরাল আবুল কালাম মোহাম্মদ আজাদ ২০০২ সালে বিএনপি-জামায়াত জোট সরকারের আমলে শেখ হাসিনার বিরুদ্ধে দায়ের করা ফ্রিগেট দুর্নীতি মামলায় আসামি ছিলেন। তখন তিনি ছিলেন কমোডর। ২০১০ সালে আওয়ামী লীগ সরকারের সময়ে হাই কোর্ট ওই মামলা বাতিল হয়ে যায়। তাকে ভূতাপেক্ষ পদোন্নতি দিয়ে রিয়ার এডমিরাল করা হয়।

নৌকার পক্ষে নামা সেনা কর্মকর্তাদের মধ্যে অবসরপ্রাপ্ত লেফটেন্যান্ট জেনারেল তিনজন, অবসরপ্রাপ্ত মেজর জেনারেল ১৮ জন, অবসরপ্রাপ্ত ব্রিগেডিয়ার জেনারেল ১৯ জন, অবসরপ্রাপ্ত কর্নেল ৭ জন, অবসরপ্রাপ্ত লেফটেন্যান্ট কর্নেল ২০ জন। এছাড়াও অবসরপ্রাপ্ত মেজর রয়েছেন ৩৫ জন। তাছাড়া ক্যাপ্টেন ও লেফটেন্যান্ট পদমর্যাদার অবসরপ্রাপ্ত কর্মকর্তারাও রয়েছেন।

নৌবাহিনীর মধ্যে অবসরপ্রাপ্ত রিয়ার এডমিরাল ২ জন, অবসরপ্রাপ্ত কমডোর ৭ জন, অবসরপ্রাপ্ত ক্যাপ্টেন ৬ জন, অবসরপ্রাপ্ত লেফটেন্যান্ট কমান্ডার ১ জন, অবসরপ্রাপ্ত ই ক্যাপ্টেন ৩ জন।

বিমানবাহিনীর মধ্যে অবসরপ্রাপ্ত এয়ার ভাইস মার্শাল ১ জন, অবসরপ্রাপ্ত এয়ার কমোডোর ২ জন, অবসরপ্রাপ্ত গ্রুপ ক্যাপ্টেন ৮ জন, অবসরপ্রাপ্ত উইং কমান্ডার ৭ জন।

অনুষ্ঠানে তারিক সিদ্দিক বলেন, “বঙ্গবন্ধু ছিলেন অত্যন্ত সামরিকবান্ধব নেতা। তার কাছে আর্মড ফোর্সেস অপরিসীম গুরুত্ব পেতেন। তিনি বলতেন, ডিফেন্স একটা জাতির অলংকার, গৌরব।

“প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সামরিক বাহিনীর প্রতি যেই দুর্বলতা দেখি, সেটা আনপ্যারালাল। তার কাছ থেকে অনেক অন্যায্য দাবিও আমরা আদায় করেছি। তার অক্লান্ত প্রচেষ্টায় সামরিক বাহিনী বিশ্বমানের বাহিনীতে পরিণত হয়েছে বা যে উচ্চতায় উঠেছে, এটাকে আমাদের ধরে রাখতে হবে। এজন্যই বললাম ধারাবাহিকতা বজায় রাখতে হবে।”

অনুষ্ঠানে আরও বক্তব্য দেন অবসরপ্রাপ্ত লেফটেন্যান্ট কমান্ডার জামাল উদ্দিন বীর উত্তম, অবসরপ্রাপ্ত লেফটেন্যান্ট জেনারেল আব্দুল ওয়াদুদ, অবসরপ্রাপ্ত রিয়ার এডমিরাল হারুনুর রশীদ, অবসরপ্রাপ্ত মেজর জেনারেল এইচআর হারুন, অবসরপ্রাপ্ত ব্রিগেডিয়ার জেনারেল মাহমুদুল হক, অবসরপ্রাপ্ত মেজর হেলাল মোরশেদ, অবসরপ্রাপ্ত লেফটেন্যান্ট কর্নেল কানিজ ফাতিমা প্রমুখ।

সাবেক সামরিক কর্মকর্তাদের নিয়ে গণভবনে এই অনুষ্ঠানে আওয়ামী লীগের সভাপতিমণ্ডলির সদস্য সাবেক সেনা কর্মকর্তা মো. ফারুক খান, যুগ্ম সম্পাদক জাহাঙ্গীর কবির নানক, আবদুর রহমান, সাংগঠনিক সম্পাদক আ ফ ম বাহাউদ্দিন নাছিম ও বিএম মোজাম্মেল উপস্থিত ছিলে

Related Posts
বেশি লাফালাফি করবেন না,আমি সবার সম্পর্কে জানি-শেখ হাসিনা  সবাইকে নৌকার পক্ষে কাজ করার নির্দেশ
মুক্ত ভাষা :  প্রধান মন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, আপনারা সবাই নৌকার পক্ষে ঐক্যবদ্ধ থাকবেন। নৌকা দিয়ে যাকে পাঠাব আপনারা তার হয়ে কাজ করবেন। বুধবার গণভবনে মনোনয়ন প্রত্যাশীদের সঙ্গে সৌজন্য সাক্ষাতের ...
READ MORE
সোমবার নতুন মন্ত্রীসভার শপথ
শেখ হাসিনার নেতৃত্বে নতুন মন্ত্রিসভা শপথ নেবে আগামী সোমবার। এবার সরকার গঠন করে টানা তৃতীয় মেয়াদে প্রধানমন্ত্রী হওয়ার অনন্য নজির স্থাপন করতে যাচ্ছেন বঙ্গবন্ধুকন্যা। সংসদে সংখ্যাগরিষ্ঠ সংসদ সদস্যের আস্থাভাজন হিসেবে ইতোমধ্যে তাকে ...
READ MORE
বঙ্গবন্ধুর সমাধিতে নতুন মন্ত্রীপরিষদের ফুলেল শ্রদ্ধা
গোপালগঞ্জের টুঙ্গিপাড়ায় জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের সমাধিতে শ্রদ্ধা জানালেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। চতুর্থবারের মতো প্রধানমন্ত্রীর দায়িত্ব গ্রহণ এবং নতুন মন্ত্রিসভা গঠনের পর প্রথম টুঙ্গিপাড়ায় গেলেন প্রধানমন্ত্রী। এ সময় তার ...
READ MORE
সারা দেশে ৩ হাজার ৫৬ মনোনয়ন জমা
একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে সারা দেশে ৩০০ আসনে ৩ হাজার ৫৬ জন প্রার্থী তাদের মনোনয়ন জমা দিয়েছেন। সে হিসেবে প্রতি আসনে এবার গড়ে ১০ জন প্রার্থী নির্বাচনী লড়াইয়ে সামিল হচ্ছেন।  ৩০ ...
READ MORE
নৌকার প্রার্থী হিসেবে মনোনয়ন নিলেন মাশরাফি
নড়াইল ২ আসন হতে নৌকার প্রার্থী হিসেবে একাদশ সংসদ নির্বাচনে লড়ার চিঠি পাওয়ার পর  মনোনয়ন ফরম সংগ্রহ করেছেন বাংলাদেশ ওয়ান ডে ক্রিকেট দলের অধিনায়ক মাশরাফি বিন মর্তুজা। জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ...
READ MORE
নীলফামারীতে র‌্যালী ও বঙ্গবন্ধুর ম্যুরাল উম্মোচন
নীলফামারীর সৈয়দপুরে জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ৪৪ তম শাহাদৎবার্ষিকী ও জাতীয় শোক দিবস উপলক্ষ্যে বঙ্গবন্ধুর ম্যুরাল উম্মোচন করা হয়েছে। এ উপলক্ষে উপজেলা প্রশাসনের উদ্দ্যগে একটি শোক র‌্যালী  শহরের ...
READ MORE
হাই কোটের রায়ে নির্বাচনে আটকে গেলেন খালেদা
হাই কোটের আদেশে দুর্নীতির দুই মামলায় দণ্ডিত সাবেক প্রধানমন্ত্রী খালেদা জিয়ার আপিল করে নির্বাচনে অংশ নেওয়ার সুযোগ আটকে গেছে । বিচারপতি মো. নজরুল ইসলাম তালুকদার ও বিচারপতি কে এম হাফিজুল আলমের ...
READ MORE
খোকার ছেলে-মেয়েকে আদালতে আত্মসর্ম্পনের নির্দেশ
সম্পদের তথ্য-বিবরণী দাখিল না করার মামলায় ঢাকার সাবেক মেয়র সাদেক হোসেন খোকার ছেলে ইশরাক হোসেন ও মেয়ে সারিকা সাদেককে চার সপ্তাহের মধ্যে নিম্ন আদালতে আত্মসমর্পণ করতে বলেছে হাই কোর্ট। তাদের আগাম ...
READ MORE
নীলফামারীতে আপিলেও বাতিল আমজাদ হোসেন সরকার
আপিলেও বাতিল হলেন আমজাদ হোসেন সরকার। রিটার্নিং কর্মকর্তা কর্তৃক মনোনয়নপত্র বাতিলের বিরুদ্ধে আপিল শুনানীতে নীলফামারী-৪ আসনে বিএনপির প্রার্থী আমজাদ হোসেন সরকারের মনোনয়ন বাতিল ঘোষণা করা হয়েছে। গত বৃহস্পতিবার দুপুরে নির্বাচন কমিশন (ইসি) ...
READ MORE
ইজতেমা মাঠে ভোটের আগে কোন জমায়েত নয়
আসন্ন একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনের কারনে ৩০ ডিসেম্বরের আগে ইজতেমা মাঠে সকল ধরনের সভা,সমাবেশ বা জমায়েত নিষিদ্ধ করা হয়েছে।  তাবলীগ জামাতের দিল্লি মারকাজ এবং দেওবন্দ মাদ্রাসার অনুসারী দুই পক্ষের সংঘর্ষে ...
READ MORE
বেশি লাফালাফি করবেন না,আমি সবার সম্পর্কে জানি-শেখ হাসিনা
সোমবার নতুন মন্ত্রীসভার শপথ
বঙ্গবন্ধুর সমাধিতে নতুন মন্ত্রীপরিষদের ফুলেল শ্রদ্ধা
সারা দেশে ৩ হাজার ৫৬ মনোনয়ন জমা
নৌকার প্রার্থী হিসেবে মনোনয়ন নিলেন মাশরাফি
নীলফামারীতে র‌্যালী ও বঙ্গবন্ধুর ম্যুরাল উম্মোচন
হাই কোটের রায়ে নির্বাচনে আটকে গেলেন খালেদা
খোকার ছেলে-মেয়েকে আদালতে আত্মসর্ম্পনের নির্দেশ
নীলফামারীতে আপিলেও বাতিল আমজাদ হোসেন সরকার
ইজতেমা মাঠে ভোটের আগে কোন জমায়েত নয়
Spread the love
শর্টলিংকঃ
সকল প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না। পাঠকের মতামতের জন্য কৃর্তপক্ষ দায়ী নয়। লেখাটির দায় সম্পূর্ন লেখকের।